হাজার হাজার বছর পুরানো এই বাড়িতে মানুষ এখনও থাকে

author image
4:55 pm 14 Jul, 2017

Advertisement

মানুষ প্রথমে জঙ্গলে এবং গুহায় বসবাস করতো। এরপর তারা ঘর বানাতে শুরু করে। তখন তারা গুহাকে ঘরের আকৃতি দেয়। এরপর বাড়ি বানাতে ব্যবহার করা হয় মাটি, পাথর। তারপর এলো কংক্রিট ও রড। কিন্তু আপনারা জানলে অবাক হবেন যে পৃথিবীর বিভিন্ন অংশে মানুষের তৈরি করা হাজার হাজার বছর পুরানো বাড়ি এখনও অক্ষত অবস্হায় রয়েছে। এখনও সেই বাড়িতে মানুষ প্রজন্ম ধরে এখানে বসবাস করছেন।

ইতালির শহর মটেরা হলো পৃথিবীর একমাত্র স্হান যেখানে মানুষ এখনো সেই বাড়িতেই থাকেন। যেখানে 9,000 বছর পূর্বে তাদের পূর্বপুরুষরা থাকতেন। ইতালির দক্ষিণে অবস্হিত বেসিলিকাটাতে অবস্হিত এই শহর অবস্হিত রয়েছে পাহাড়ের মধ্যে।

ফ্রান্সে অবস্হিত এই বাড়িতে ত্রয়োদশ শতাব্দী নির্মিত হয়েছিল। এর ওপরের অংশটি বড়। এই রকম করা হয়েছে কর বাঁচানোর জন্য। কারণ সেই সময় কর নেওয়া হতো নিচের তলার এরিয়া অনুযায়ী।

ইরানের উত্তর-পশ্চিমে অঞ্চলে অবস্থিত এই বাড়িটি প্রায় 800 বছর পুরানো। গুহার মধ্যে তৈরি এই বাড়িগুলিতে বাস করে প্রায় 168 পরিবার।

জেরুজালেমের ওয়াদি কবেল্টে অবস্হিত রয়েছে সেন্ট জর্জ অর্থোডক্স মঠ। এর নির্মাণ হয়েছিল 480 খ্রিস্টাব্দে। এখন এখানে বাস করেন ইস্টার্ন অর্থডক্স সন্ন্যাসীরা।

দক্ষিণ মধ্য ইরানের মেমান্দে রয়েছে প্রাচীন গুহা ঘর। এখানে মানুষ বসবাস করছে 3 হাজার বছর থেকে। 2006 সালে হওয়া জনগণনা অনুযায়ী এই গুহার ঘরে বাস করেন 673 জন।

তুরস্কের অন্টাকয়ার নিকট চার্চ অফ সেন্ট পিটার্স। এটা হলো বিশ্বের প্রাচীনতম গীর্জা। পাহাড়ে কেটে চতুর্থ বা পঞ্চম শতাব্দীতে নির্মাণ করা হয়েছে। 2015 সালে মেরামতের পর পুনরায় এই গির্জা খোলা হয়।



 


  • Advertisement