অ্যান্টার্কটিকা হিমবাহের অভ্যন্তরে গরম গুহার ভেতরে রয়েছে একটি নতুন জগত্

author image
11:30 am 13 Sep, 2017

Advertisement

বিজ্ঞানীরা মনে করেন অ্যান্টার্কটিকা হিমবাহের অভ্যন্তরে গরম গুহার ভেতর প্রাণী আর উদ্ভিদের একটি রহস্যময় জগত্ থাকতে পারে। অস্ট্রেলিয়ান ন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির গবেষণায় জানা গেছে অ্যান্টার্কটিকার রোস দ্বীপে সক্রিয় আগ্নেয়গিরি মাউন্ট ইরেবসের আশেপাশে ঝড়নার প্রবাহ বড় গুহাগুলিকে জাল বানিয়েছে। গবেষকদের মতে এই গুহা থেকে প্রাপ্ত মাটির নমুনায় শেওলা ও ছোট প্রাণীদের টুকরো পাওয়া গেছে।

এএনইউ ফেনার স্কুল অ্যান্ড এনভায়রনমেন্ট এন্ড সোসাইটির সি. ফ্রান্সার বলেছেন,

“গুহার ভেতরের আবহাওয়া উষ্ণ। কোনও কোনও গুহার তাপমাত্রা 25 ডিগ্রী সেলসিয়াস পর্যন্ত হতে পারে। আপনি সেখানে টি-শার্ট পড়ে আরামে সময় কাটাতে পারবেন। গুহার যে অংশে বরফের পাতলা আস্তরণ রয়েছে সেখানে হালকা আলো ফিল্টার হয়।”



ফ্রেজার পোলার বায়োলজি জনরালে প্রকাশিত গবেষণার প্রধান গবেষক।

তিনি বলেছেন, মাউন্ট হরবেসে অধিকতর গুহা থেকে পাওয়া ডিএনএ অ্যান্টার্কটিকার অন্যান্য স্হান থেকে পাওয়া শেত্তলা, প্রাণীদের ডিএনএ-র অনুরূপ।

এই গবেষণার মধ্যে থেকে মনে প্রশ্ন উঠছে অ্যান্টার্কটিকার বরফের গুহার মধ্যে কি থাকতে পারে। উদ্ভিদ এবং প্রাণীর নতুন প্রজাতিও থাকতে পারে। ফ্রেজার বলেছেন: “পরের ধাপে গুহাগুলি আরো ভালোভাবে পরীক্ষা করা হবে এবং জীবন্ত প্রাণীর সন্ধান করা হবে। যদি সেখানে এগুলি উপস্হিত থাকে তাহলে নতুন জগতের সন্ধান পাওয়া যাবে।”


Advertisement

 


  • Advertisement