রাখী সাওয়ান্ত জায়রাকে তার সাথে হওয়া যৌন হেনস্তার বিষয়ে করা ‘সংবেদনশীল’ প্রশ্নের উত্তর চান

author image
2:06 pm 16 Dec, 2017

Advertisement

কিছুদিন আগে অভিজাত বিমানসংস্থা ভিস্তারার যাত্রী ছিলেন জায়রা। সেখানেই অশালীন আচরণের মুখে পড়েন তিনি। ঘটনার বিবরণ দিতে গিয়ে ইনস্টাগ্রামে পোস্ট করা এক ভিডিওয় কান্নায় ভেঙে পড়েন অভিনেত্রী। তিনি জানান, যে সিটে জায়রা বসেছিলেন, ঠিক তার পিছনের সিটেই যাত্রী ছিলেন বিকাশ সচদেব। অভিযুক্ত ব্যক্তি প্রথমে তার পা জায়রার সিটে তুলে দেয়। প্রতিবাদ করেন জায়রা। তাতে হিতে বিপরীত হয়। পা নামাতে অস্বীকার করেন ওই ব্যক্তি। উলটে নানাভাবে হেনস্তা করতে থাকেন তরুণী অভিনেত্রীকে। পুরো ঘটনায় চোখে জল এসে যায় জায়রার। ভিস্তারা বিমানসংস্থায় অভিনেত্রী জায়রা ওয়াসিমকে যৌন হেনস্তার ঘটনায় উত্তাল হয়েছিল গোটা দেশ।

laughingcolours

সম্প্রতি রাখি সাওয়ান্ত এই ঘটনায় তাঁর প্রতিক্রিয়া দিয়েছেন। 2012 সালের ব্লকবাস্টার বলিউড সিনেমা “দঙ্গল “এ একটি শিশু কুস্তিগীর হিসেবে তার ভূমিকা থেকে খ্যাতি অর্জন করেছিলেন। রাখি জায়রাকে কয়েকটি ন্যায়সঙ্গত এবং বৈধ প্রশ্ন করেছেন এবং তিনি চান জায়রার সেই প্রশ্নের উত্তর দিক।

রাখি জিজ্ঞাসা করেছেন:

“17 বছরের জায়রার সঙ্গে অশালীন আচরণ করছে তার সহযাত্রী। কেন সে মুম্বাই নামার জন্য অপেক্ষা করেছিল? সে ফ্লাইটে চিত্কার করতে পারো। কেন সে অপেক্ষা করেছিল? যখনই তার সাথে এই অভদ্র আচরণ হয়েছিল, তখনই সেই ব্যক্তিকে থাপ্পড় মারা উচিত ছিল। আমি থাকলে চিত্কার করতাম। যাত্রী এবং কেবিন ক্রুদের জড়ো করতাম। একজন ব্যক্তি খারাপ হলে ফ্লাইটের সবাই খারাপ হয় না। কেন সে অপেক্ষা করছিল? কেন বাচ্চার মতো কাঁদছিল?”

theladiesfinger


Advertisement

রাখি ওয়াসিমের প্রতিক্রিয়া নিয়ে প্রশ্ন করেছে:

“দাঙ্গালে আমির খান শিখিয়েছে কিভাবে লড়াই করতে হয়। জায়রা দাঙ্গাল গার্ল কেঁদে সহানুভূতি পাওয়ার চেষ্টা করছে। সেই অপরাধীকে মারধর করা উচিত ছিল।”



একই সময়ে, তিনি বিমানের বিরুদ্ধে কোনও অভিযোগ করেননি। কারণ তিনি ভিস্তাতে অনেক ভ্রমণ করেছেন। তিনি বলেছিলেন:

“আমি ভিস্তারাতে অনেক ভ্রমণ করেছি। তাদের কেবিন ক্রু নম্র। তাদের পাইলটরাও দক্ষ। আমি বুঝতে পারছি না যে জায়রার সাথে কীভাবে বা কেন এই ঘটনাটি ঘটেছে?”

রাখি পুলিশের দ্রুত পদক্ষেপের প্রশংসা করেছেন:

17 বছরের একজন সেলিব্রিটি তার সাথে হওয়া হয়রানি সম্পর্কে অভিযোগ করেছে। অপরাধীকে সঙ্গে সঙ্গে আটক করা হয়েছে। 5 বছরের এক দরিদ্র মেয়েকে ধর্ষণ করা হয় কিন্তু তার অপরাধী ঘুরে বেড়াতে থাকে। আমাদের দেশে কী ঘটছে? কিছু লজ্জা দেখান।”

rediff

 


Advertisement

 


  • Advertisement