কাঁচের বক্সের মধ্যে বন্ধ করে রাখা হয়েছে এই ভয়ানক পুতুলটিকে, হাত লাগানো নিষিদ্ধ

author image
12:40 pm 21 Aug, 2017

Advertisement

হলিউড ও বলিউড উভয় জায়গায় ভূতের সিনেমা তৈরি হয়েছে। এর মধ্যে অনেকগুলি সিনেমা আসল ঘটনার ওপর তৈরি করা হয়েছে বলে দাবি করা হয়েছে। সম্প্রতি একটি ভৌতিক সিনেমা অ্যানাবেল মুক্তি পেয়েছে। সিনেমাটিকে নিয়ে আলোচনার বিষয়টি হলো সিনেমায় যে পুতুলটিকে দেখানো হয়েছে সেই রকম একটি পুতুল বাস্তবে রয়েছে। আসল পুতুলটির কাহিনী সিনেমা দেখানো কাহিনীর থেকেও ভয়ানক।

প্যারানর্মাল ইনভেস্টিগেটার্স এড অর লোরেন ওয়ারেনের মুনরো, কানেকটিকাট ভিত্তিক অ্যাঙ্কলট মিউজিয়ামে অ্যানাবেল নামের এই পুতুলটি সকলের কাছে আকর্ষণীয় বিষয়। এই পুতুলের সাথে যুক্ত বাস্তব ঘটনা বছর 1970 সালের। সেই সময় প্রথমবার প্যারানর্মাল ইনভেস্টিগেটার্স এড এবং লোরেন ওয়ারেন এই পুতুলটির সম্পর্কে জানতে পারেন।

ওয়ারেন অনুযায়ী, 1970 সালে ডোনা নামের একটি মেয়েকে তার মা তার জন্মদিনে এই পুতুলটি উপহারে দেন। নার্সিং এর পড়াশুনা করার জন্য ডোনা তার বন্ধুর সাথে থাকতো। প্রথমে সবকিছু ঠিক ছিল কিন্তু এর পরে বাড়িতে অদ্ভুত ঘটনা ঘটতে থাকে। পুতুলটি কখনও নিজের জায়গা থাকতো না। তাকে বিভিন্ন রকম জায়গায় পাওয়া যেতো। এরপর বাড়িতে বিভিন্ন জায়গায় হেল্প মি লেখা দেখতে পাওয়া গেলো। সবথেকে ভয়ানক বিষয়টি হলো পুতুলের মধ্যে রক্ত দেখতে পাওয়া যেতো।



প্যারানর্মাল তদন্তকারী ওয়ারেনও কয়েকবার পুতুলে রক্ত দেখতে পান। কিন্তু এইরকম কেন হতো তার উত্তর পাওয়া যায়নি। দুটি মেয়ে এই পুতুলটিকে পরিত্রাণ পাওয়ার জন্য বার বার চেষ্টা করেও ব্যর্থ হয়। কারণ প্রত্যেকবার পুতুলটিকে বাড়ির মধ্যেই পাওয়া যেতো। পুতুলটি কয়েকবার ডোনা এবং তার বন্ধুর ওপর হামলাও করেছে। পুতুলটি ডোনার বন্ধু লুকে হত্যা করারও চেষ্টা করেছিল।

লরেন জানিয়েছেন, এতগুলি ঘটনা ঘটার পর ডোনা তাদের সাথে যোগাযোগ করে। প্যারানর্মাল তদন্তকারীরা জানতে পারেন পুতুলের মধ্যে দুষ্টু আত্মা লুকিয়ে রয়েছে। যে নিজের জন্য মানুষের শরীর খুঁজছে। এরপর এড এবং লোরেন পুতুলটিকে নিজের সাথে নিয়ে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নেন। গাড়ি চালানোর সময় কয়েকবার গাড়ির ব্রেক এবং স্টিয়ারিং ফেল হয়েছে। লরেন বলেছেন, মিউজিয়ামে নিয়ে আসার পর পুতুলটিকে একটি কাঁচের বাক্সে বন্ধ করে রাখা হয়েছে। সেই কারণে ওই আত্মাটি এক জায়গায় আটকে রয়েছে।


Advertisement

 


  • Advertisement