নোট বাতিলের প্রভাব পড়েনি খুচরো বাজারে!

author image
4:08 pm 17 Nov, 2016

নোট বদলের সিদ্ধান্তের ফলে মানুষকে অনেক সমস্যার সম্মুখীন হতে হচ্ছে। কিন্তু একধাক্কায় কমেছে সবজির দাম। বাজারে এসেছে শীতের সবজি। পাইকারি বাজারে নোট বাতিলের প্রভাব পড়লেও খুচরো বাজারে তার প্রভাব পড়েনি। নোট বাতিলের ফলে এক সপ্তাহে পাইকারি বাজারে দাম কমেছে বিভিন্ন সবজির।

গত সপ্তাহে পটল ছিল 1800 টাকা বস্তা চলতি সপ্তাহে বস্তা পিছু পটলের দাম হয়েছে 1200 টাকা। করলার বস্তার দাম 1800 টাকা কমে গিয়ে হয়েছে 900 টাকা। আগের সপ্তাহে আলু বস্তা প্রতি বিক্রি হয়েছে 1400 টাকায়। এই সপ্তাহে যার দাম হয়েছে 700 টাকা। ফুলকপির দাম কেজি প্রতি 20 টাকা থেকে হয়েছে 14 টাকা। সাথে সাথে দাম কমেছে পেঁয়াজকলি,পালংশাক,কুমড়োর। প্রতি বছর শীতের শুরুতে বাজারে আসে নতুন সবজি। দাম কিছুটা হলেও কম থাকে কিন্তু এই বছর রয়েছে নোট বাতিলের ঢাক্কা।


নোট সঙ্কটে দাম কমেছে মাছের। প্রতিদিন যেখানে 90 টি মাছের ট্রাক ঢুকতো এখন তার বদলে ঢোকে 10 টি। প্রথমে রুই মাছ বিক্রি হচ্ছিল 125-130 টাকা কেজি দরে এখন সেটা নেমে এসেছে 100-105 টাকায়। কাতলার দর এখন 190 টাকা।

দাম কমেছে মাংসের। কেজি প্রতি দাম ছিল 160-170 টাকা। সেটা এখন দাম কমে হয়েছে 130-135 টাকা। তা সত্তেও বাজারগুলি এখন কার্যত জনমানবশূন্য।

নোট বাতিল হওয়ায় ক্রেতা যেমন সমস্যায় পড়েছে তেমনি সমস্যায় পড়েছে খুচরো সবজি বিক্রেতা। নতুন নোট না থাকায় অনেকে মাল কিনতে পারছেন না যার কারণে ফড়েদের কাছ থেকে চড়া দামে মাল কিনতে হচ্ছে। ফলে সমস্যা থেকেই যাচ্ছে।

Discussions



TY News