15 টি হিন্দু মন্দিরের ওপর হামলা, শত-শত হিন্দু বা়ড়িতে ভাঙচুর

5:42 pm November 02, 2016


বাংলাদেশে সংখ্যালঘু হিন্দুদের ওপর বারবার ইসলামিক জিহাদ দ্বারা হামলা চালানো হচ্ছে। ব্রাহ্মণবেদিয়া জেলার নশিরনগর এলাকায় জিহাদীরা 15 টি হিন্দু মন্দির ভেঙ্গে দিয়েছে। পাশাপাশি হিন্দু ঘরবাড়িতে লুটপাটের সাথে আগুনও লাগানো হয়েছে।

বিভিন্ন স্থানে ঘটা এই ধরনের ঘটনায় অন্তত ছয়জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে এবং 500 জনেরও বেশি অজ্ঞাত ব্যক্তির ওপর মামলা দায়ের করা হয়েছে।

রাজধানী ঢাকাতে প্রকাশিত দ্য ডেলি স্টারের রিপোর্টে বলা হয়েছে, মুসলমানদের ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত করতে কথিত ফেসবুক পোস্টের বিরুদ্ধে হিফাজত-এ-ইসলাম এবং আহলে সুন্নাত-ই-ইসলামের হাজার হাজার সমর্থকরা বিভিন্ন অংশে একটি মিছিলের আয়োজন করেছিল। ইসলামী বিক্ষোভকারীরা ফেসবুকে পোস্ট যে এই বিষয়টি লিখেছে তার বিরুদ্ধে মৃত্যুদন্ডের দাবি করেছে।

নশিরনগর থানার ইনচার্জ আবদুল কাদির পত্রিকাকে জানিয়েছেন, হাজার হাজার ইসলামিক বিক্ষোভকারীরা কাশীপাড়,দাসপাড়া,দত্তপাড়া এবং নমোশুদ্ধপাড়ার মতো হিন্দু অধ্যুষিত এলাকায় ভাংচুর করেছে।

ডেলি স্টার পত্রিকাকে ব্রাহ্মণবেদিয়া জেলার পুলিশ প্রধান মিজানুর রহমান জানান,150 থেকে 200 জন পাঁচটি মন্দির ভেঙ্গে দেওয়ার সাথে সাত-আটটি মূর্তিও ভেঙ্গে দিয়েছে। এই ঘটনায় দুই জন আহত হয়েছে এবং 6 জনকে পুলিশ হেফাজতে নেওয়া হয়েছে।

এরই মধ্যে পূজা কমিটির সাধারণ সম্পাদক কিলপদ পোদ্দার জানিয়েছেন, প্রায় 15 হিন্দু মন্দির আক্রান্ত এবং সেখানে লুঠপাঠ করা হয়। পোদ্দার দাবি করেন যে, প্রায় 200 হিন্দু বাড়িতে হামলা করা হয়েছে এবং লুঠপাঠ করা হয়েছে।


সাম্প্রতিক সময়ে বাংলাদেশে সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের ওপর হামলার বেড়েছে। গত 2 বছর বিভিন্ন ধর্মনিরপেক্ষ ব্লগার, লেখক ও কর্মীদেরকে ইসলামী মৌলবাদীরা গুলি করে হত্যা করেছে।

সাম্প্রতিককালে বাংলাদেশের রাজধানী ঢাকাতে একটি অভিজাত এলাকায় জঙ্গিরা হামলা চালিয়ে বিদেশি নাগরিকদের মেরে ফেলেছিল।

Facebook Discussions