“মহাকাশ থেকে দেখা ভারত ও চিনের দূষণের অবস্হা অত্যন্ত ভীতিজনক”

4:17 pm 24 Oct, 2016


সম্প্রতি প্রখ্যাত মহাকাশচারী স্কট কেলি বলেন যখন তিনি মহাকাশ থেকে ভারত এবং চিনের দিকে যখন তাকান সেখানকার দূষণের ছবিটা দেখে চমকে যান। তিনি জানিয়েছেন বছরের বেশিরভাগ সময় মহাকাশ থেকে ভারতের কোনও শহরকে দেখা যায় না।

চীন ও ভারতে দূষণের যা অবস্হা তা আতঙ্কজনক। প্রায় অধিকাংশ সময় দুই দেশের শহরকে যে ভাবে দূষণের পর্দা ঘিরে রেখেছে তা অত্যন্ত উদ্বেগজনক – স্কট কেলি, মহাকাশচারী

মার্কিন মহাকাশচারী স্কট কেলি গোটা এক বছর মহাকাশে কাটিয়েছেন। 21 অক্টোবর তিনি তার সেই অভিজ্ঞতা হোয়াইট হাউসে মার্কিন প্রসিডেন্ট বারাক ওবামার কাছে তুলে ধরেন।

তিনি ওভাল অফিসে থাকার সময় বলেন 2015 সালে তিনি প্রথম চিন দেশকে দেখেন। একবছর মহাকাশে কাটানোর সময় তিনি কখনও চিনের শহরগুলিকে পরিষ্কার ভাবে দেখেননি।


“তিনি বলেন 2015 সালের গ্রীষ্মকালের একদিন যখন আমি মহাকাশে ছিলাম তখন আমি চীন পূর্ব অংশ স্পষ্টভাবে দেখেছি। মহাকাশে থাকার সময় এই রকম আগে কখনও দেখেনি। এক বছর মহাকাশে কাটানোর সময় একটা কালচে জিনিস দেখে খুব অবাক হই।”

চিনে 200র বেশি শহর আছে। যেখানে বহু মানুষ বাস করেন। প্রথমবার আমি যখন দেখি তখন যেন শহরগুলিতে গোধুলি নেমে এসেছে। এইটা দেখে আমি খুব অবাক হই।

A picture of India taken by Scott from space.Twitter- Scott Kely

ভারতের দূষণের এই ছবিটি মহাকাশ থেকে তুলেছেন স্কট কেলি Twitter- Scott Kely

কিছুদিন পর কেলি বুঝতে পারেন কেন তিনি চিনের অংশগুলি কেনও দেখতে সক্ষম হচ্ছেন না। তিনি বলেন এই অভিজ্ঞতা থেকে তিনি বুঝতে পারছেন যে পরিবেশকে আমরা কিভাবে ধ্বংস করছি। এটা “খুব ভীতিকর বিষয়।”

“সুতরাং আমাদের পরিবেশকে দূষিত করছি তাই জন্য আমাদের পরিবেশ সুরক্ষার জন্য দ্রুত এই বিষয় পদক্ষেপ নিতে হবে। মহাকাশ থেকে এটা দেখতে খুবই ভীতিকর লাগে।”

হোয়াইট হাউসে মার্কিন প্রসিডেন্ট বারাক ওবামা স্কট কেলিকে মার্কিন হিরো অ্যাখ্যা দিয়েছেন। আমেরিকার পরবর্তী লক্ষ্য মঙ্গলে মানুষ পাঠানো বলে জানিয়েছেন।

Discussions